মেইন ম্যেনু

ইরাকে নতুন প্রধানমন্ত্রীকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের স্বাগত

হায়দার আল-আবাদিকে নব্য প্রধানমন্ত্রী হিসেবে মনোনয়ন দেওয়াটা সামনের দিকে অগ্রসরে একটি দৃঢ় পদক্ষেপ বলে মন্তব্য করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা।

ইরাকের কঠিন সময় পার করার কথা উল্লেখ করে তিনি এর রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দকে একসাথে কাজ করার আহ্বানও জানান।

এর আগে সোমবার বর্তমান প্রধানমন্ত্রী নৌরি মালিকিকে পদচ্যুত করে ইরাকি প্রেসিডেন্ট হায়দার আল-আবাদিকে নতুন সরকার গঠনের আহ্বান জানান।

এদিকে মালিকি আবাদির মনোনয়নকে সংবিধান লঙ্ঘণ বলে মন্তব্য করেছেন।

অপরদিকে ইরাকে বিমান হামলার বিষয়ে মার্কিন প্রেসিডন্ট বারাক ওবামা বলেছেন, মার্কিন বাহিনী তার কাজ সুষ্ঠুভাবেই করেছে এবং উত্তর ইরাকের জঙ্গীরা এখন কোনঠাসা। এই অভিযানে স্থলবাহিনীর সাথে কোনো মার্কিন সেনা ছিল না বলেও উল্লেখ করেন তিনি। তিনি জানান, এই অভিযান শুধুমাত্র ইরাকি সরকারীবাহিনীই পরিচালনা করেছে।

এদিকে মঙ্গলবার মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী জন কেরি আশা প্রকাশ করে বলেছেন, ইরাকের নতুন সরকার খুব দ্রুত কাজ শুরু করবে এবং আইএসআইএস এর তৎপরতার বিরুদ্ধে পুরো দেশকে একাট্টা করবে।

সোমবার প্রধানমন্ত্রী হিসেবে মনোনয়ন পাওয়া হায়দার আল-আবাদিকে আগামী ত্রিশ দিনের মাঝে নতনু সরকার গঠন করতে হবে।

সিডনিতে এক সংবাদ সম্মেলনে জর কেরি বলেন, আমরা চাই আবাদি যত দ্রুত সম্ভব নতুন মন্ত্রীসভা গঠন করে কাজ শুরু করবেন এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র নতুন সরকারকে পরিপূর্ণ সহায়তা করতে প্রস্তুত।

তবে বাগদাদে সেনা মোতায়েনসহ ইরাকি প্রেসিডেন্টের বিরুদ্ধে সংবিধান লঙ্ঘণের অভিযোগ উত্থাপন করে চলমান পরিস্থিতিকে আরো জটিল করে তুলেছেন। মালিকির দলের অধঃস্তন নেতারাও সোমবার প্রেসিডেন্টের নতুন সরকার গঠনের সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করেছেন। তবে দলের উচ্চস্তরের নেতারা নতুন প্রধানমন্ত্রী আল-আবাদিকে সমর্থন করছেন।
– See more at: http://www.priyo.com/2014/08/12/95340.html#sthash.VKWLhjGY.dpuf






মন্তব্য চালু নেই