মেইন ম্যেনু

তারেক রহমানের প্রতি ইঙ্গিত করে আমু

আরো একটি ২১ আগস্টের ষড়যন্ত্র হচ্ছে

তারেক রহমানের প্রতি ইঙ্গিত করে আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ও শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু বলেছেন, ‘আরো একটি ২১ আগস্ট ঘটানোর জন্য বিদেশে বসে ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে।’

শনিবার বিকেলে রাজধানীর ধানমণ্ডির ৩২ নম্বরে আওয়ামী লীগের এক আলোচনা সভায় তিনি একথা বলেন। জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে এ আলোচনা সভার আয়োজন করে ঢাকা-১০ আসন আওয়ামী লীগ।

‘২১ আগস্টের বিচার নিয়ে আওয়ামী লীগ প্রতিহিংসা ও প্রহসনের বিচার করছে’ বিএনপির এমন বক্তব্যের সমালোচনা করে আমির হোসেন আমু বলেন, ‘কেঁচো খুড়তে গিয়ে সাপ বেরিয়ে যাওয়ায় তারা (বিএনপি) ব্যর্থ হয়ে পাগলের মত প্রলাপ বকছে। আওয়ামী লীগের ইতিহাসে প্রহসনের বিচারের নজির নেই। বঙ্গবন্ধু হত্যার বিচারের মত এই মামলার বিচারও স্বচ্ছভাবে করা হবে।’

শিল্পমন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপি হালে পানি পাচ্ছে না। আন্দোলনের ডাক দিয়ে পিছিয়ে যাচ্ছে। তবে আমরা মনে করি, তারা আবার ১৫, ২১ আগস্টের মত ঘটনা ঘটানোর পরিকল্পনা করছে। বিদেশে বসে ষড়যন্ত্র করে হঠাৎ উদ্ভব ঘটাবে। কিন্তু আমাদের আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী এতটাই শক্তিশালি এখন আর তারা সেটা পারবে না।’

‘আমরাও একুশে আগস্টের বিচার চাই, কিন্তু প্রহসনের বিচার নয়’ বিএনপি ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুলের এমন বক্তব্যের সমালোচনা করে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ বলেন, ‘বিএনপির মহাসচিব শিক্ষক মানুষ। অনেক সুন্দরভাবে কথা বলতে পারেন। তবে মিথ্যা এমনভাবে বলেন তাতে মিথ্যাচারের শিক্ষক হিসেবেই তাকে মানায়।’

হানিফ আরো বলেন, ‘হত্যাকারিকে বাঁচানোর জন্য এর চেয়ে নির্লজ্জ মিথ্যাচার আর কি হতে পারে? আপনারা জজ মিয়া নাটক সাজিয়েছেন, তাবেদার বিচারক জয়নাল আবেদিনকে দিয়ে একটা তদন্ত প্রতিবেদন দিয়েছেন যে, পাশ্ববর্তী দেশ থেকে এসে হামলা করেছে।’

তিনি বলেন, ‘কিসের আশায় এ ধরণের মিথ্যাচার করে যাচ্ছেন? এটা জাতির কাছে পরিষ্কার নয়। আমরা প্রকৃত আসামিদেরই বিচার করবো, কোনো প্রহসন নয়।’

বঙ্গবন্ধুর হত্যাকারীদের মত ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলাকারী তারেক রহমানসহ সবার বিচার করার করা হবে বলেও মন্তব্য করেন নগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম।

ঢাকা-১০ আসনের সংসদ সদস্য ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপসের সভাপতিত্বে এই আলোচনা সভায় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এম এ আজিজ, সাংগঠনিক সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ প্রমুখ।






মন্তব্য চালু নেই