মেইন ম্যেনু

অস্ত্রের মুখে গ্রামীণ ব্যাংকে ডাকাতি

নড়াইলে গ্রামীণ ব্যাংকের মাইজপাড়া শাখায় অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে টাকা ও দুইটি মোটরসাইকেল লুট করেছে সন্ত্রাসীরা। রোববার বিকেল ৪টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

ব্যাংকের শাখা ব্যবস্থাপক শাকিল আহমেদ জানান, আনুমানিক ১৮ থেকে ২০ বছরের পাঁচ যুবক হাঁটতে হাঁটতে ব্যাংকের ভেতরে প্রবেশ করে প্রথমে আমাদের সঙ্গে কথা বলতে চায়। পরে পিস্তল উঁচিয়ে আমাদের সবাই জিম্মি করে। এসময় সেকেন্ড অফিসার শাহেদ আলমসহ আট কর্মকর্তা-কর্মচারী অফিসে অবস্থান করছিলেন।

এসময় সবাইকে জিম্মি করে অস্ত্রধারীরা। পরে তারা টাকা লুট করতে চাইলে ব্যাংকের ভোল্টে কোনো টাকা ছিল না। গ্রাহকদের কাছ থেকে সংগৃহীত টাকা আগেই ব্যাংকে রেখে আসা হয়। তবে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ব্যক্তিগত প্রায় ২৫ হাজার টাকা লুটসহ দুইজন মাঠকর্মীর কাছ থেকে চাবি ছিনিয়ে দুইটি মোটরসাইকেল নিয়ে নেয়। পরে ছিনতাইকৃত মোটরসাইকেল নিয়ে ওই পাঁচ যুবক নড়াইলের দিকে পালিয়ে যায়।

তিনি আরও জানান, অস্ত্রধারী পাঁচ যুবকের মধ্যে একজনের মুখমণ্ডল কিছুটা ডাকা থাকলেও সবার মুখ খোলা ছিল। এছাড়া সবার কাঁধে ব্যাগ ঝুলানো ছিল। দুইতলা ভবনের নিচতলায় ব্যাংকের অফিস। ওপরে আমাদের আবাসিক। আমাদের ব্যাংকে কোনো সিসি ক্যামেরাও ছিল না বলে জানান তিনি।

সদর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দেলোয়ার হোসেন জানান, পুলিশ ঘটনাস্থলের উদ্দেশ্যে রওনা হয়েছে। পরে বিস্তারিত জানানো হবে।

এদিকে, দিনের বেলায় ব্যাংকে অস্ত্রধারীদের প্রবেশে ব্যাংকের কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ স্থানীয়রা আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন।






মন্তব্য চালু নেই